শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:৫৫ অপরাহ্ন

বিয়ে না পুতুল খেলা ?

এম এস সিরাজ: / ৫৫ বার পঠিত
সময় : বৃহস্পতিবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৯:৫২ পূর্বাহ্ণ

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ছোট বেলা আমরা বিয়ে বিয়ে খেলেছি। বরঃ এল পাত বেল পাত খুঁকি খায় খোঁকার ভাত।

কনেঃ এল পাত বেল পাত খোঁকা খায় খুঁকির ভাত। মন্ত্র পড়ে বিয়ে করতাম। কিছুক্ষণ পর বিয়ে ভেঙ্গে যেত।

হলিউডের কিছু বিয়ে আর বিচ্ছেদের ঘটনা দেখলে মনে প্রশ্ন জাগে, বিয়ে পুতুল খেলার মত কিনা?প্রশ্নটার উত্তর তারাই ভালো বলতে পারবেন, যারা ক্ষণিক সময়ের জন্য দম্পতি হওয়ার সৌভাগ্য নাকি দুর্ভাগ্য অর্জন করেছেন।

৭ মিনিটের সংসার!

যেমন রবিন গিভেন্স-মারিনোভিচ (স্থায়িত্ব- ৭ মিনিট)এই বিয়েটা নিয়ে যথেষ্ট হাসাহাসি করে মানুষ। মডেল অভিনেত্রী রবিন গিভেন্স ও মারিনোভিচের বিয়ের আয়ু এত কম যে, বিয়ে হয়েছিল কি হয়নি তা নিয়ে নিজেদের মধ্যেই সন্দেহ দেখা দেবে।

বিয়ের মাত্র সাত মিনিট পরই তাদের ডিভোর্স হয়। নিন্দুকদের মন্তব্য, বেচারারা বিয়ের স্মৃতি স্বরুপ একটা ছবিও তুলতে পারল না! এটি ১৯৯৭ সালের ঘটনা। তবে সাত মিনিটে কী এমন ঘটল যে বিয়ে ভাঙতে হল, তা নিয়ে মুখ খুলেননি কেউই।

 

রুডলপ ভ্যালেন্তিনো-জিন অ্যাকার (স্থায়িত্ব- ৬ ঘণ্টা)

ইতালিয়ান অভিনেতা ‘লাতিন লাভার’ বলে খ্যাত ছিলেন রুডলফ ভ্যালেন্তিনো। বেচারা বিয়ে করেছিলেন আমেরিকান অভিনেত্রী জিন অ্যাকারকে।

কিন্তু আমেরিকান এ অভিনেত্রীকে বিয়ে করার সময় তার সম্পর্কে কোন ধারণাই ছিল না আবেগপ্রবণ ভ্যালেন্তিনোর। জিন ছিলেন লেসবিয়ান। বিয়ের ছয় ঘণ্টা পরই জিন বিবাহে বিচ্ছেদ ঘটান। ভ্যালেন্তিনোরও কিছু করার ছিল না।

কারণ বিবাহিত জীবনের সে ছয় ঘণ্টাই হোটেল রুমে নববধু কর্তৃক তালাবদ্ধ থাকতে হয়েছে তাকে।

৩. ব্রিটনি স্পিয়ার্স-জেসন আলেক্সান্ডার (স্থায়িত্ব- ৫৫ ঘন্টা)     

ব্রিটনির ছেলেবেলার বন্ধ জেসন আলেক্সান্ডার। ২০০৪ সালের জানুয়ারিতে খুব উৎসাহের সাথে লাসভেগাসের একটি চার্চে গিয়ে বিয়ে করেন দুজন। বিয়ের সময় স্পিয়ার্সের পরনে ছিল জিন্স আর মাথায় বেসবল ক্যাপ। ঘটা করে ঘোষণা দেন আজীবন একসাথে থাকবেন। চারিদিকে শুরু হয় হইচই।

কিন্তু বিয়ের ঠিক ৫৫ ঘন্টা পরই বদলে যায় স্পিয়ার্সের গলার সুর। “আরে এটা ছিল মজা করার জন্য। আমরা একটু বেশিই করে ফেলেছিলাম।” বিয়ে বিচ্ছেদ ঘটান দুজন।

তবে কয়েকদিন পরই জেসনের মন্তব্যে তৈরী হয় আলোচনার নতুন ইস্যু। জেসন বিয়ে বিচ্ছেদের কারণ হিসেবে উল্লেখ করেন খুবই হাস্যকর কিছু কথা।

জেসনের অভিযোগ ব্রিটনি পরিস্কার পরিচ্ছন্ন থাকেন না। প্রতিদিন গোসল করেন না। গায়ে নাকি তীব্র কটু গন্ধ!

প্রচণ্ড খামখেয়ালী এই গায়িকা এ পর্যন্ত দুই বার ডিভোর্স করেছেন।

৪. ক্যামেরন ইলেক্ট্রা-ডেনিস রডম্যান (স্থায়িত্ব- নয় দিন)

ক্যামেরন ইলেক্ট্রা এবং বাস্কেটবল খেলোয়াড় ডেনিস রডম্যানের বিয়েটা হয়েছিল লাস ভেগাসে ১৯৯৮ সালের নভেম্বরে। কিন্তু নয়দিন পরই ডিভোর্স। কারণ খুবই সাদামাটা- বিয়ের আগের রাতে ড্রিংকস করেছিলেন রডম্যান। মদ খেয়ে মাতাল থাকায় বিয়ে হয়েছে কী হয়নি এ নিয়েই প্রশ্ন ওঠে।

ঐদিনই ডিভোর্সের জন্য আবেদন করেন ক্যামেরন। অবশ্য পরে মামলা মোকদ্দমা শেষ হওয়ার অপেক্ষায় আরও চার মাস একত্রেই কাটিয়েছিলেন তারা। যাক, তাও তো চেষ্টা ছিল!


সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

Theme Customized By Theme Park BD